০১৮১৯-৯১৯৪২৭

Welcome to Belkuchi Pourashava

Belkuchi Pourashava | বেলকুচি পৌরসভা, সিরাজগঞ্জ

বেলকুচির নামকরণ এবং এরইতিহাস নিয়ে এপর্যন্ততেমন কোন তথ্যঅনুসন্ধান ও একটিপূর্নাঙ্গ ইতিহাস এখনও রচিত হয়নি।বিচ্ছিন্ন ভাবে কিছুকিছু তথ্য বিভিন্নপত্র পত্রিকা ওসাময়িকীতে যা প্রকাশিতহয়েছে তারই উপরনির্ভর করে বেলকুচিরনাম করণ এবংএর সংক্ষিপ্ত ইতিহাসনিম্নে উপস্থাপন করাহল। সিরাজগঞ্জ মহকুমারপরে জেলা হিসাবেআত্মপ্রকাশ করার বহুপূর্বেই বেলকুচি ছিলএকটি প্রসিদ্ধ নদীবন্দর।১৭৭৮/৭৯ খ্রীষ্টাব্দে একজন বৃটিশ নাগরিকমেজর রেনেল এইঅঞ্চলের যে মানচিত্রতৈরী করেন তাতেবর্তমান সিরাজগঞ্জে কোননাম বা অস্তিত্বছিলনা বলে জানাযায়।তবে বেলকুচির নামটিঔ মানচিত্রে ছিল।আফজাল মাহমুদ নামকএকজন বুজর্গ ব্যক্তিরস্মৃতি বিজরিত বেলকুচিসেই সময়ে ছিলসিরাজ আলী চৌধুরীরজমিদারীর রাজধানী।১৭৮৭ খ্রীষ্টাব্দে উক্ত সিরাজ আলীচৌধরী “বড় বাজু”পরগনার সাত আনাঅংশ খরিদ করেনিজ নামে “সিরাজগঞ্জজমিদারী” স্থাপন করেছিলেনএবং সেই সিরাজগঞ্জজমিদারীর রাজধানী ছিলএই “বেলকুচি” ।যমুনা নদীর করালগ্রাসে সেই তৎকালীনশানশওকত পূর্ন সেইবেলকুচির রাজধানী নদীগর্ভে বিলীন হয়েগেলে বর্তমান সিরাজগঞ্জশহরের আত্ম প্রকাশঘটে। ১৯২১ সালেশাহজাদপুর,উল্লাপাড়া ওসিরাজগঞ্জ থানা থেকেমোট ১০৮টি মৌজানিয়ে বেলকুচি থানাপ্রতিষ্ঠিত হয়। পরবর্তীতেস্থানীয় সরকার অধ্যাদেশ১৯৮২ অনুযায়ী ১৯৮৩সালে বেলকুচি থানাকেউপজেলায় উন্নিত করাহয়।

বেলকুচি পৌরসভার শিল্প ও বাণিজ্য

বেলকুচি পৌরসভায় শিল্প ও বাণিজ্য প্রশার ঘটছে। বিশিক শিল্প নগরী বেলকুচি পৌরসভায় একটি লাভজনক শিল্প প্রতিষ্ঠান হিসাবে পরিচিতি লাভ করেছে। এখানে প্রতিনিয়ত শিল্প প্রতিষ্ঠান গড়ে উঠছে। সরকার পৃষ্টপোষকতা করলে এটি আরও জেলার অর্থনৈতিক উন্নয়নে ভুমিকা পালন করবে।

পর্যটন ও ঐতিহাসিক স্থান


Top